স্বল্প পুঁজি ব্যয়ে লাভজনক কয়েকটি ব্যবসা!

0
990

দেশের অনেক যুবকযুবতীই আজকাল ব্যবসা করতে চায় কিন্তু অধিকাংশ যুবকের কাছে পুঁজি কম থাকায় ব্যবসায় হাত দিতে পারে না আবার অনেকেই এসব যুবকযুবতীদের বলবে ব্যবসা করতে অনেক টাকার প্রয়োজন এভাবে হাজারো ইচ্ছার মৃত্যু হচ্ছে প্রতিনিয়ত ব্যবসা শুরু করতে অনেক পুঁজি লাগে কথাটা মোটেও ঠিক নয় অনেক ব্যবসা আছে যেগুলো খুব কম পুঁজিতেই শুরু করা যায় এই ব্যবসাগুলোর বৈশিষ্ট্য হচ্ছে ছাত্রছাত্রী, কম বয়স্ক যুবকযুবতী এবং গৃহিনীরাও করতে পারবে

অল্প পুঁজিতে লাভজনক কয়েকটি ব্যবসার ধারণা:

মোবাইল ফোনের দোকান: আজকাল দেশের প্রায় লোকই মোবাইল ফোন ব্যবহার করছে। এই মোবাইল ফোনের চাহিদা দিনদিন বৃদ্ধিই পাবে বলা যায়। বর্তমানে মোবাইল ফোনের ব্যবসা খুবই জমজমাট হচ্ছে। এজন্য কী অনেক বেশি পুঁজি লাগবে? প্রথমে ছোট পরিসরে অল্পকিছু মোবাইল নিয়েই একটা দোকান খুলুন। আস্তে আস্তে দোকান বড় করতে থাকবেন। এরপর ফোনের এক্সেসরিজ বিক্রি করবেন

মুদির দোকান: আপনার পুঁজি স্বল্পতা আছে। তাই একটা মুদির দোকান দিতে পারেন। এই ব্যবসার একটা বড় সুবিধা হচ্ছে এতে অতিরিক্ত বুদ্ধিমত্তা লাগবে না। যেখানে দোকান কম কিন্তু বিক্রি হবে বেশি এমন স্থান পছন্দ করবেন

হোম ডেলিভারি পদ্ধতি চালু রাখতে পারেন। ফেজবুক পেজ খুলে ইনবক্সে অর্ডার নিতে পারেন। কাছাকাছি বাসায় পণ্য পৌঁছে দিবেন। দেখবেন আপনার ব্যবসা দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে

বিউটি পার্লার:মেয়েদের জন্য সবচেয়ে ভাল সহজ ব্যবসা হচ্ছে এটি। মাত্র মাসের বিউটিশিয়ান কোর্স করার পর একটি পার্লার খুলতে পারেন। পার্লার ব্যবসার ভবিষ্যত নিয়ে কিছু বলার প্রয়োজন আছে বলে মনে করছি না

জেনারেল স্টোর: জেনারেল স্টোর বা গালামালের ব্যবসা খুবই লাভজনক। এসব দোকানে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য যেমনসাবান, শ্যাম্পু, সৌন্দর্য প্রসাধনী, কলম, খাতাপত্র ইত্যাদি রাখবেন। এই ব্যবসায় পুরুষের সাথে মহিলারাও কাজ করতে পারবে

জিম: আজকাল প্রত্যেক ব্যক্তিই স্বাস্থ্য ধরে রাখতে চায়। এজন্য অনেকেই জিমে যান। এটাকেই আপনি সুযোগ হিসেবে নিতে পারেন। একটি ভাল স্থান দেখে খুলে ফেলুন ব্যবসা। চাহিদা বাড়লে, উপার্জন বাড়লে বিভিন্ন স্থানে শাখা খুলে ফেলুন

কম্পিউটার, ল্যাপটপ মেরামত: যদি আপনি কম্পিউটার, ল্যাপটপ মেরামত করতে পারেন তবে এটি আপনার জন্য একটি ভাল ব্যবসা হবে। যদি না পারেন তবে প্রশিক্ষণ নিতে হবে। সরকারীভাবেও প্রশিক্ষণ নেয়া যায়। মাত্র মাসের প্রশিক্ষণ নিয়েই কম্পিউটার মেরামতের ব্যবসা খুলতে পারবেন

হোম ক্যান্টিন: যেখানে জনসংখ্যা অধিক সেখানে কাজকর্মও বেশি। বেশি থাকে অফিস বা প্রতিষ্ঠান। কাজের চাপে অনেকেই দুপুরের খাবার খাওয়ার জন্য অফিসের বাইরে যেতে পারে না। তাই আপনি বিভিন্ন অফিসে খাবার সরবরাহ করার জন্য হোম ক্যান্টিন খুলতে পারেন। এজন্য বাসাতেই রান্না করতে পারবেন। অতঃপর তা অর্ডার অনুযায়ী যথা সময়েই অফিসে পৌঁছে দিবেন

উপহার সামগ্রীর দোকান: উপহার সামগ্রী, বাচ্চাদের খেলনা, ফুলের দোকান ইত্যাদির ব্যবসা খুলতে পারেন

দুধ দুগ্ধজাত পণ্যসামগ্রী: দুধ দুগ্ধজাত পণ্য বিক্রি করেও অনেক টাকা উপার্জন করা যায়

মুরগির ব্যবসা: খামার থেকে ব্রয়লার মুরগি, ডিম ইত্যাদি কিনেও ব্যবসা শুরু করতে পারেন। মাত্র ২৫৩০ হাজার টাকা বিনিয়োগ করেই লাভজনক এই ব্যবসাটি শুরু করা যায়

যেকোন কাজকেই সন্মান করতে শিখুন। কোন ব্যবসাকেই ছোট করে দেখবেন না। পাড়ার লোকে কি বলবে এত শোনার সময় আপনার নেই। আমি এক নাপিতের কথা জেনেছি। উপার্জন ছিল খুবই ভাল। বিয়ের পর শ্বশুর গ্রামের লোকেরা খারাপ বলে বিধায় নাপিতের পেশা ছেড়ে দিয়েছে! এখন সে দিনমজুরী করে কোন রকম পেট চালায়। অপরদিকে ভারতের রমেশ বাবু বিলাসবহুল রোলস রয়েস গাড়িতে চেপে তার সেলুনে যান অন্যের চুল কাটতে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here